১লা জুলাই, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার, সকাল ৭:২৮
নোটিশ :
Wellcome to our website...

মিল্টন বিশ্বাসের হাত ধরে ‘বাংলা সাহিত্য গবেষণা কেন্দ্রে’র ওয়েবসাইট

রিপোর্টার
শুক্রবার, ০১ জুলাই ২০২২, ০৭:২৮ পূর্বাহ্ন

জবি প্রতিনিধি।।

গত ২৬ জুলাই (২০২০) অধ্যাপক ড. মিল্টন বিশ্বাসের হাত ধরে ‘‘বাংলা সাহিত্য গবেষণা কেন্দ্রে’’র ওয়েবসাইট  (https://blrcbd.com/)- এর যাত্রা শুরু হলো। একই নামে(বাংলা সাহিত্য গবেষণা কেন্দ্র) ১টি ইউটিউব চ্যানেল, ফেসবুক পেজ ও গ্রুপ আছে এই অনলাইনভিত্তিক সংগঠনটির।

বাংলা সাহিত্যের হাজার বছরের ইতিহাসে কবিতা, গল্প, নাটক, উপন্যাসসহ বিভিন্ন আঙ্গিক- সাহিত্যের প্রসার ঘটিয়েছে।বৈচিত্র্যময় সাহিত্যের অনেক কিছুই কোন একটি বইয়ে একত্রে পাওয়া যায় না।বিভিন্ন বই থেকে শিক্ষার্থীদের সংগ্রহ করতে হয় সাহিত্যের সকল তথ্য। করোনা মহামারির মধ্যে শিক্ষার্থীদের সেই কষ্ট লাঘব করতে বিশিষ্ট লেখক, কবি, কলামিস্ট, চিন্তাবিদ ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. মিল্টন বিশ্বাসের একক প্রচেষ্টায় ‘‘বাংলা সাহিত্য গবেষণা কেন্দ্র’’ নামে একটি শিক্ষামূলক ওয়েবসাইটের আত্মপ্রকাশ ঘটেছে।যেখানে বাংলা সাহিত্যের প্রাচীন নিদর্শন চর্যাপদের ইতিহাস থেকে শুরু করে পাওয়া যাবে মধ্যযুগ ও আধুনিক যুগের সাহিত্যের আলোচনা।

বাংলা সাহিত্য গবেষণা কেন্দ্রের ওয়েবসাইটে ‘‘ই-বুক’’ গুরুত্ব পাচ্ছে।তবে সঙ্গে থাকছে গুণীজনদের সাহিত্য সমালোচনা। হাতের কাছে বই না থাকলেও এখানে পাঠকরা পাবেন সাহিত্যের ই-বুক, অডিও-বুক এবং ভিডিও। এছাড়াও সংগঠনটির নিজস্ব ইউটিউব চ্যানেল-এ সাহিত্যের আলোচনা থেকে উপকৃত হবেন শিক্ষার্থীরা।

এ ব্যাপারে বাংলা সাহিত্য গবেষণা কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা অধ্যাপক ড. মিল্টন বিশ্বাস বলেন, বাংলাদেশে এ ধরনের উদ্যোগ এটাই প্রথম।বিশেষত সাহিত্যের বিশ্লেষণকে গুরুত্ব দিয়েছি আমরা। আর ওয়েবসাইটটি নিয়মিত গবেষণামূলক প্রবন্ধ ও গ্রন্থ আপলোডের মাধ্যমে জনপ্রিয়তা অর্জন করতে সক্ষম হবে।তবে বিদেশি শিক্ষার্থীদের বাংলা ভাষা প্রশিক্ষণের দায়িত্ব পালন করবে এই সংগঠনটি। উপরন্তু গবেষকদের লেখাকে ই-বুক আকারে প্রকাশেরও ব্যবস্থা করা হবে বলে তিনি মতামত ব্যক্ত করেন।তিনি আরো জানান, তাঁর সঙ্গে একদল তরুণ গবেষক আছেন যারা আইটি ও সাহিত্য বিষয়ে ভালো ধারণা রাখেন।তাদের নাম ক্রমান্বয়ে প্রকাশ করা হবে।

উল্লেখ্য, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ড. মিল্টন বিশ্বাস ২০০০ সাল থেকে ২০ বছর যাবৎ পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনার কাজে নিয়োজিত। তিনি কয়েক হাজার কলাম, ২০ টির বেশি গ্রন্থ এবং অসংখ্য সাহিত্য বিষয়ক গবেষণা-প্রবন্ধ লিখেছেন। তিনি আরো সম্পৃক্ত আছেন বেশ কয়েকটি ওয়েবসাইটের সঙ্গে। এগুলো হলো-

১. http://www.writermiltonbiswas.com/ (ব্যক্তিগত) 

২. https://www.pcfbd.org/ (সাংগঠনিক, বাংলাদেশ প্রগতিশীল কলামিস্ট ফোরাম)

৩.https://www.varsitynews24.net/ (ভার্সিটিনিউজ২৪.নেট। নিউজ পোর্টাল)

৪.  https://blrcbd.com/  (একাডেমিক)

অনেকেই মনে করেন, ড. মিল্টন বিশ্বাসের মতো ওয়েবসাইট পরিচালনার অভিজ্ঞতা পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের খুব কম অধ্যাপকেরই আছে। অন্যদিকে শিক্ষার্থীরা মনে করেন, দেশ-বিদেশের বাংলা ভাষীদের কাছে ‘‘বাংলা সাহিত্য গবেষণা কেন্দ্রে’’র গুরুত্ব অচিরেই প্রমাণিত হবে। কোভিড-১৯ মহামারিতে শিক্ষার্থীদের কাজে লাগছে বলে ইতোমধ্যে ওয়েবসাইটটি কৌতূহলী করে তুলেছে সকলকে।

‘‘বাংলা সাহিত্য গবেষণা কেন্দ্রে’’র ওয়েবসাইটের ভিডিও মেকিং পার্টনার হিসেবে কাজ করছে CineTech, Wee Hours Cinema


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো সংবাদ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর